বন অধিদপ্তর গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১১ অক্টোবর ২০১৭

বন অধিদপ্তরের কেন্দ্রীয় লাইব্রেরী

 

 

শিক্ষা ও প্রশিক্ষন উইং বন অধিদপ্তরের কেন্দ্রীয় লাইব্রেরীর কার্যক্রম দেখাশোনা করে। বর্তমান এই লাইব্রেরীটি ঢাকাস্থ আগারগাঁও বন ভবনের নীচ তলায় অবস্থিত।  বন অধিদপ্তরের কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারটি ১৯৭৬ সালে  ৭১, দিলকুশা রোড, মতিঝিল এলাকায় প্রথমে একটি পরিত্যক্ত বাড়ীর ছোট্ট কক্ষে কিছু সংখ্যক বই নিয়ে শুরু হয়। প্রথম দিকে একজন অফিস সহকারী বইগুলোর রক্ষাণাবেক্ষণের দায়িত্বে ছিলেন। মহাখালীতে বন ভবন নির্মাণ করার পর উহার ৬ষ্ট তলায় বৃহত্তর পরিসরে গ্রন্থাগারটি পুনঃ স্থাপন করা হয়। তখন হতেই বন অধিদপ্তরের কর্মকর্তা-গবেষক, ছাত্র, শিক্ষকগণ বন, পরিবেশ এবং কৃষি বিষয়ক তথ্য সংগ্রহের জন্য অত্র গ্রস্থাগারে এসে থাকেন। দেশের বাহির হতেও অনেক গবেষক বন বিষয়ক তথ্য সংগ্রহের জন্য গ্রস্থাগারে  এসে থাকেন।

 

                        

                         

 

বই, জার্নাল, সাময়িকী ক্রয় ও বিভিন্ন জনের অনুদানের ফলে বই এর সংখ্যা দিন দিনই বেড়ে চলছে। ১৯৯০ সালের দিকে অত্র লাইব্রেরীতে প্রথম পেশাদার লাইব্রেরীয়ান নিয়োগ করা হয়। বর্তমানে একজন লাইব্রেরীয়ান ও এক জন এম.এল.এস.এস লাইব্রেরীতে কাজ করে থাকেন। অত্র লাইব্রেরীতে ৮,০০০ এর অধিক টেক্সট বই আছে।

 

লাইব্রেরীতে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক একটি কর্ণার রয়েছে। সেখানে মুক্তিযুদ্ধ সংশ্লিষ্ট বইয়ের সংগ্রহ রয়েছে। পাঠক সহজেই এ বিষয়ক তথ্য পেতে পারে। লাইব্রেরী একটি তথ্যযুক্ত প্রতিষ্ঠান এবং সব তথ্য পাওয়ার জন্য প্রতিদিনই পাঠক সংখ্যা বেড়ে যাচ্ছে। বন, পরিবেশ ও জলবায়ু সংক্রান্ত জ্ঞান বিতরণের ক্ষেত্রে এ লাইব্রেরী একটি উল্লেখযোগ্য ভূমিকা পালন করতে পারে । ২০১৬ ইং সালে বন্যপ্রাণী সংরক্ষণে আঞ্চলিক সহযোগিতা জোরদারকরণ প্রকল্প  (SRCWP) এ লাইব্রেরীতে প্রচুর সংখ্যক বই, জার্নাল, সাময়িকী, আসবাবপত্র ও আনুষাংগিক সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধি করা হয়েছে। বর্তমানে লাইব্রেরীটিকে ডিজিটাল সংস্করণ করার পরিকল্পনা আছে। 


Share with :

Share with :

Facebook Facebook